প্রতিবছর কতজন অনার কিলিংয়ের শিকার হয়?

২০০০ সাল থেকে বিক্ষিপ্তভাবে সংগৃহীত ও প্রকাশিত পরিসংখ্যান অনুযায়ী সারা বিশ্বে বছরে প্রায় ৫,০০০ অনার কিলিংয়ের ঘটনা ঘটে থাকে। এই সংখ্যা জাতিসংঘের বিবৃতির সঙ্গেও মেলে। যেহেতু বহু অনার কিলিংয়ের ঘটনাকে দুর্ঘটনা বা আত্মহত্যা বলে চালিয়ে দেয়া হয়, সেহেতু বাস্তব পরিসংখ্যানের চারগুণ হলেও আশ্চর্য হওয়ার কিছু নেই।

পরিবারের সম্মান রক্ষার নামে যাদের হত্যা করা হয়, তাদের গড় বয়স ২৩ ও তাদের ৯৩ শতাংশই মেয়ে। দুই-তৃতীয়াংশ প্রাণ হারায় পরিবারের সদস্যদের হাতে। নিহতদের অর্ধেক হত্যাকারীর মেয়ে, নয়তো বোন; নিহতদের এক-চতুর্থাংশ হত্যাকারীর স্ত্রী কিংবা বান্ধবী। হত্যার কারণ ষাট ভাগ ক্ষেত্রে ‘বড় বেশি পশ্চিমী’ হয়ে পড়া; বাকিদের ক্ষেত্রে পুরুষ বা পরপুরুষের সঙ্গে সম্পর্কে জড়ানোর অভিযোগ।

সরকারি পরিসংখ্যান অনুযায়ী ২০১৫ সালে পাকিস্তানে প্রায় ১,১০০ অনার কিলিংয়ের ঘটনা ঘটে। পাকিস্তানের গ্রামীণ সমাজে অনার কিলিংয়ের প্রতি জনসাধারণেরও সমর্থন থাকার ফলে, এই কুপ্রথা দূর করার যাবতীয় প্রচেষ্টা ব্যাহত হয়েছে ও হচ্ছে। ইতিপূর্বে নিহতের পরিবার হত্যাকারীকে ক্ষমা করে দিলে সে ছাড় পেত; এবছর আইনের সে ফাঁকটি বন্ধ করা হয়েছে।

ভারতেও ঘটে অনার কিলিংয়ের ঘটনা। গোটা দেশে বছরে হাজার খানেক অনার কিলিং হয় বলে অনুমান করা হয়ে থাকে, যদিও বাস্তবিক সংখ্যা জানা সম্ভব নয়। উত্তর ভারতে, বিশেষ করে উত্তর প্রদেশ ও হরিয়ানাতেই অনার কিলিংয়ের ঘটনা ঘটে বেশি, দক্ষিণ ভারত বা মহারাষ্ট্র কিংবা গুজরাটে সে তুলনায় কম। অনার কিলিংয়ের খবর পাওয়া গেছে পাঞ্জাব ও বিহার থেকেও। পশ্চিমবঙ্গে অনার কিলিং গত ১০০ বছর ধরেই প্রায় নেই বললেই চলে।

বাংলাদেশে অনার কিলিংয়ের খবর এখনো পাওয়া যায়নি। তবে পরিবারের পছন্দে বিয়ে না করার কারণে হত্যার ঘটনা বেশ কিছু ঘটেছে। ব্যক্তি ও পরিবারের অহংবোধ থেকে বেশকিছু ঘটনা ঘটেছে।

ব্রিটেনে অভিবাসীদের মধ্যে অনার কিলিং বিরল নয়। কুর্দি, পাকিস্তানি ও সিরীয় বাবারা নিজেদের মেয়েদের স্বহস্তে হত্যা করছেন, এমন ঘটনা বারবার ঘটেছে। ২০১০ সালে এক শিখ পিতা তার কন্যাকে হত্যা করেন। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বিক্ষিপ্ত হলেও, অভিবাসী সম্প্রদায়গুলোর মধ্যে একাধিক অনার কিলিংয়ের ঘটনা ঘটেছে। জার্মানি ও ইউরোপের অন্য কয়েকটি দেশেও অনার কিলিংয়ের ঘটনা ঘটেছে।

কানাডায় আফগান বাবার হাতে তিন মেয়ে খুন হয় ২০০৯ সালে। ঘটনাটা আলোড়ন তুলেছিল। সে বছর কানাডার অন্টারিও প্রদেশের কিংস্টন শহরের খালে একটি গাড়ি ডুবন্ত অবস্থায় পাওয়া যায়। গাড়িতে ছিল ১৯, ১৭ ও ১৩ বছর বয়সের তিনটি মেয়ে ও তাদের মায়ের লাশ।

বার্লিনেও ঘটেছে অনার কিলিংয়ের ঘটনা। হাতুন সুরুচু ছিলেন তুরস্কের আনাতোলিয়া থেকে জার্মানিতে আসা এক কুর্দ দম্পতির সন্তান। বার্লিনের তুর্কি-অধু্যষিত ক্রয়েৎসবার্গ অঞ্চলে মানুষ হয়েছেন। ১৬ বছর বয়সে তাকে জোর করে বিয়ে দেয়া হয় তুরস্কে। জার্মানিতে ফিরে হাতুন পুত্রসন্তানের জন্ম দেন ও স্বাধীন জীবনযাপন শুরু করেন। একটি কলহের পর হাতুনকে বার্লিনের এক বাস স্টপে মাথায় তিনবার গুলি করে মারেন তার ভাই আইহান সুরুচু।

ডয়েচে ভেলে

 

Biography, Famous Quotes উক্তি সমূহ লেখাটি ভালো লেগে থাকলে বন্ধুদের সাথে শেয়ার করো। এই ধরনের লেখার নিয়মিত আপডেট পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজটি ফলো 

 

ডেইলি নিউজ টাইমস বিডি ডটকম (Dailynewstimesbd.com)এর ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব  ফেসবুক পেইজটি ফলো করুন করুন।

Subscribe to the Daily News Times bd.com YouTube channel and follow the Facebook page.

 

উক্ত আর্টিকেলের উক্তি বাণীসমূগ বিভিন্ন ব্লগ, উইকিপিডিয়া এবং .. রচিত গ্রন্থ থেকে সংগ্রহ করা হয়েছে।

আরও পড়তে পারেনদরজার বাইরে মাকে রেখে মেয়েকে ধর্ষণ করেছিলেন ম্যারাডোনা, দাবি বান্ধবীর

আরও পড়ুনকালিদাস পণ্ডিতের ধাঁধাঁ ১। পর্ব moral stories Kalidas Pondit In Bangla কালিদাস

Read More: মেয়েকে ধর্ষণের দায়ে বাবার যাবজ্জীবন

আরো জানুন >> ছাত্রীকে ধর্ষণ মামলায় শিক্ষকের যাবজ্জীবন

এখনই কিনুন >> সাত বছরের শিশুকে ধর্ষণের দায়ে বাবার যাবজ্জীবন

সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন >> মেয়েকে ধর্ষণের মামলায় পিতার যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

জোর করে মাটিতে ফেলে মাকে ধর্ষণ, মোবাইল দিয়ে ছবি তুলল মেয়ে

মেয়ের সামনে মাকে ধর্ষণ, ডিবির এসআই কারাগারে

সৎ মাকে ধর্ষণের চেষ্টা, ছেলে আটক

মাতাল অবস্থায় মাকে ধর্ষণ, ছেলে আটক

মায়ের অবগতিতেই বোনকে বছর ধরে ধর্ষণ!

দ্বিতীয়বারের জন্য মাকে ধর্ষণ করতে গিয়ে গ্রেফতার ছেলে

 

 

তথ্যসূত্র: Wikipedia, Online

Sourc of : Wikipedia, Online Internet

 

 ছবিঃ ইন্টারনেট

দৃষ্টি আকর্ষণ এই সাইটে সাধারণত আমরা নিজস্ব কোনো খবর তৈরী করি না.. আমরা বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবরগুলো সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি.. তাই কোনো খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কতৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো। ধন্যবাদ সবাইকে।

Leave a Reply

Translate »