বিয়ের লেহেঙ্গা কেনার সময় যে ৫ বিষয় খেয়াল রাখবেন

শীত আসতেই বিয়ের মৌসুম শুরু হয়। বছরের শেষদিকে বিয়ের ধুম পড়ে যায় বিভিন্ন পরিবারে। বিয়ে মানেই নতুন পোশাক, গয়না আর হৈ হুল্লোড়ে সময় পার করা। বিয়ে নিয়ে সবচেয়ে বেশি চিন্তিত থাকেন নারীরা।

 

বিয়ের দিন কোন রং বা ডিজাইনের পোশাক পরবেন, তার সঙ্গে জুয়েলারি কেমন হবে, কীভাবে সাজবেন? এসব বিষয় নিয়ে উৎকণ্ঠার মধ্যে থাকেন কনে। বর্তমানে বিয়ের পোশাক হিসেবে সব কনেই বাহারি লেহেঙ্গা বেছে নিচ্ছেন।

বিয়ের লেহেঙ্গা কেনার সময় যে ৫ বিষয় খেয়াল রাখবেন

বিয়ের দিন কোন রং বা ডিজাইনের পোশাক পরবেন, তার সঙ্গে জুয়েলারি কেমন হবে, কীভাবে সাজবেন? এসব বিষয় নিয়ে উৎকণ্ঠার মধ্যে থাকেন কনে। বর্তমানে বিয়ের পোশাক হিসেবে সব কনেই বাহারি লেহেঙ্গা বেছে নিচ্ছেন।

 

 

বর্তমানে গায়ে হলুদ, মেহেন্দি থেকে শুরু করে বিয়ে এমনকি বৌভাতেও নানা রঙের লেহেঙ্গায় নজর কাড়েন কনে। তাই আপনিও যদি বিয়েতে লেহেঙ্গা পরতে চান, তাহলে কয়েকটি বিষয়ে খেয়াল রাখতে হবে।

বিয়ের মরশুমে লেহেঙ্গা কেনার সময় মাথায় রাখুন এই বিষয়গুলি
বিয়ের মরশুমে লেহেঙ্গা কেনার সময় মাথায় রাখুন এই বিষয়গুলি

না হলে বিয়ের পুরো লুকই নষ্ট হয়ে যেতে পারে। এমনটিই বলছেন, আইডিবস লন্ডনের প্রতিষ্ঠাতা আলিয়া দীবা। তার মতে, বিয়ের পোশাক কেনার আগে ৫টি বিষয় মাথায় ররাখা উচিত। জেনে নিন কোনগুলোগবেষণা করুন

 

ব্রাইডাল ড্রেস কেনার আগে ওই পোশাক নিয়ে গবেষণা করা জরুরি। অনেক কনেই আছেন যারা ব্রাইডেল ড্রেস কনার পর আফসোস করেন। তাই বিয়ের পোশাক কেনার আগে তা যাচাই বাছাই করা জরুরি

 

ত্বকের সঙ্গে সামঞ্জস্য

 

আপনার ত্বকের ধরন অনুযায়ী, লেহেঙ্গার রং নির্ধারণ করুন। কারণ সব রং সবার ত্বকের সঙ্গে মানায় না। তাই বিয়ের পোশাক কেনার আগে অবশ্যই ত্বকের টোন অনুযায়ী সঠিক রংটি বেছে নিন। ফলে আপনার সৌন্দর্য দ্বিগুণ বেড়ে যা

সঠিক কাপড় বেছে নি

 

বিয়ের পোশাকটি যেন আরামদায়ক হয়, সেদিকে লক্ষ্য রাখুন। লেহেঙ্গার কাপড় যেন বিয়ের দিন আপনার অস্বস্তির কারণ হয়ে না দাঁড়ায়। এ কারণে পোশাক কেনার আগে গবেষণা করা জরুরি। আপনার লেহেঙ্গার কাপড় জর্জেট, টিস্যু, সিল্ক নাকি কাতানের হবে তা আগে থেকেই নির্ধারন করু

বিয়ের মরশুমে লেহেঙ্গা কেনার সময় মাথায় রাখুন এই বিষয়গুলি
বিয়ের মরশুমে লেহেঙ্গা কেনার সময় মাথায় রাখুন এই বিষয়গুলি

আবহাওয়ায় নজর রাখু

 

আপনার বিয়ে বা বৌভাতের পোশাক কেনার সময় অবশ্যই আবহাওয়ার দিকে খেয়াল রাখুন। আবহাওয়া অনুসারে আবার পোশাকের রঙেও তারতম্য আনতে হয়। যেমন গ্রীষ্মকালে বিয়ে হলে হালকা রঙের পোশাক পরুন। আর শীতের পোশাকগুলো বেছে নিন একটু গাঢ় রঙেরনs24ন।ন24বে।তা।

 

শারীরিক গড়ন

 

বেশিরভাগ কনেই বিয়ের পোশাক কেনার সময় শরীরের ধরন বিবেচনা করে না। শরীরের গড়ন অনুযায়ী কোন পোশাক পরলে কেমন দেখাবে তা নিশ্চিত হয়ে নিন আগেই।

 

মডেলের পরা লেহেঙ্গার ছবি দেখেই তা কিনবেন না। কারণ তার শরীরের পোশাকটি মানালেও আপনার ক্ষেত্রে নাও মানাতে পারে। সবচেয়ে ভালো হয় একজন ফ্যাশন ডিজাইনার বা স্টাইলিস্টের কাছ থেকে এ বিষয়ে পরামর্শ নেওয়া।

ঘরে বসেই মিলবে জমির পর্চা ও ম্যাপ, আবেদন করবেন যেভাবে

পরিবর্তনের জন্য সময় রাখা

 

বিয়ের কেনাকাটা করার সময় হাতে পর্যাপ্ত সময় রাখুন। যদি কোনো পোশাক পরিবর্তনের প্রয়োজন হয় তাহলে সময় করে তা বদলানো যায়। অনেকেই জলদি বিয়ের কেনাকাটা ও অনুষ্ঠানগুলো করেন, সেক্ষেত্রে অনেক ঝামেলার সৃষ্টি হতে পারে।

 

বিয়ে নারী-পুরুষ সবার জীবনেরই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্ত। বিশেষ এই মুহূর্তকে স্মরণীয় করে রাখতে সবাই নিজের সাধ্য মতো চেষ্টা করে। তাই সময় নিয়ে বিয়ের উৎসব আরও আকর্ষণীয় করে তুলুন, যেন পরে আফসোস বা অনুশোচনা বোধ না হয়।

 

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

 

Leave a Reply

Translate »