মানবদেহ সম্পর্কিত 100 প্রশ্ন উত্তর | মানবদেহের মজার তথ্য | Various known and unknown facts about human body

নবদেহ সম্পর্কিত বিভিন্ন জানা অজানা তথ্যঃ এই পোষ্টে মানবদেহ সম্পর্কিত বিভিন্ন জানা অজানা তথ্য শেয়ার করা হল। প্রিয় ছাত্রছাত্রীদের বিভিন্ন প্রতিযোগিতা মূলক এবং বিভিন্ন চাকুরীমুখী পরীক্ষায় কাজে আসবে। নিম্নে মানবদেহ (একনজরে মানবদেহ) সম্পর্কিত বিভিন্ন জানা অজানা তথ্য এর তালিকা PDF সহ আলোচনা করা হল।

 মানবদেহ সম্পর্কিত বিভিন্ন জানা অজানা তথ্য

বিভিন্ন ক্রিয়াকলাপ                                                          বিবরণ

মোট পেশির সংখ্যা                                                                                  ৬৩১ টি

বৃহত্তম পেশি।                                                                                            গ্লূটিয়াস.

পৌষ্টিক নালীর দৈর্ঘ্য                                                                               ৯ মিটার

বৃক্কীয় নালিকার দৈর্ঘ্য                                                                              ৩৫-৫০ mm

ক্ষুদ্রান্ত্রের দৈর্ঘ্য                                                                                          ৭ মিটার।

বৃহদন্ত্রের দৈর্ঘ্য                                                                                           ১.৫ মিটার

অগ্ন্যাশয়ের ওজন                                                                                    ৬৫-১৫০ গ্রাম

যকৃতের ওজন                                                                                           ১.৫ কিগ্রা

মোট রক্তের পরিমাণ                                                                               ৫.৬ লিটার।

রক্ততনের সময়কাল                                                                               ৩.৬ মিনিট।

অনুচক্রিকার সংখ্যা                                                                                ২৫০,০০০-৫,০০,০০০/cu mm.

শ্বেত রক্তকণিকার সংখ্যা।                                                                     ৭,০০০-১০,০০০/cu mm.

লোহিত রক্তকণিকার সংখ্যা                                                                  ৫০,০০০/cu mm. (পুরুষ)
৪৫,০০০/cu mm. (স্ত্রী)

দেহে হিমোগ্লোবিনের মোট পরিমাণ

১০০ গ্রাম
১৪-১৮ গ্রাম/ ১০০ মিলি. রক্তে (পুরুষ)
১২-১৫ গ্রাম/ ১০০ মিলি. রক্তে (স্ত্রী)

সর্ববৃহৎ অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি                                                                        থাইরয়েড

ক্ষুদ্রতম অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি                                                                        পিনিয়াল বডি

সর্বাপেক্ষা পাতলা ত্বক                                                                            কনজাংটিভা

সর্ববৃহৎ পৌষ্টিক গ্রন্থি                                                                             যকৃৎ

ক্ষুদ্রতম পৌষ্টিক গ্রন্থি                                                                             অক্সিন্টিক গ্রন্থি (এককোশি)

সর্ববৃহৎ লসিকা গ্রন্থি                                                                              প্লীহা

সর্বাপেক্ষা দেহ উয়তা                                                                             ৯৮.৫0F (৩৭°C)

জন্মের সময় স্বাভাবিক শ্বাস গতি ৪০-৬০/ মিনিট

 

৫ বছর বয়সে স্বাভাবিক শ্বাস গতি                                                      ২৪-২৬ / মিনিট

১৫ বছর বয়সে স্বাভাবিক শ্বাস গতি                                                    ২০-২২/ মিনিট

প্রাপ্তবয়স্কের স্বাভাবিক শ্বাসগতি                                                        ১৪-১৮ / মিনিট

B.M.R. (ক্যালরি অনুসারে)                                                                    ১,০০০-২,০০০ Kcal/দিনে (পুরুষ)
১,০০০-১,৭০০ Kcal/দিনে (স্ত্রী)

B.M.R. (দেহতল অনুসারে)                                                                   ৪০ Kcal/বর্গ মি./ঘন্টা

B.M.R. (দেহের ওজন অনুসারে)                                                         ১ Kcal/কেজি/ঘন্টা

সুষুম্নাকাণ্ডের দৈর্ঘ্য                                                                                  ৪২-৪৫ সেমি.

মস্তিষ্কের ওজন                                                                                         ১.৩৬ কিগ্রা.

পিটুইটারি গ্রন্থির ওজন                                                                           ১.৫ গ্রাম

সুষুম্না স্নায়ুর সংখ্যা                                                                                   ৩১ জোড়া

দীর্ঘতম স্নায়ু                                                                                               সায়াটিক নার্ভ

দেহের দীর্ঘতম কোষ                                                                              স্নায়ুকোষ

করোটি স্নায়ুর সংখ্যা                                                                                ১২ জোড়া |

মোট অস্থি সংখ্যা                                                                                      ২০৬টি

করোটি অস্থির সংখ্যা                                                                              ২২টি।

প্রতি মিনিটে CO2, নির্গতের পরিমাণ                                                   ২০০ মিলি

দৈনিক হৃদস্পন্দন ঘটে প্রায়                                                                ১০০,০০০

সর্বাপেক্ষা হালকা অস্থি                                                                           ন্যাসো-টারবিনেট

হাঁচির গতি                                                                                                  ১৬০ কিমি/ ঘন্টা।

সারাদেহে রক্ত প্রবাহের সময়       ২২ সেকেন্ড।

 

মানবদেহ হল একটি মানুষের পূর্ণাঙ্গ দেহ কাঠামো যা মাথাঘাড়ধড় (যাতে অন্তর্ভুক্ত হলোবক্ষ  এবং পেট), বাহু  এবং হাত, পা  এবং পায়ের পাতা। মানব দেহের প্রতিটি অংশই বিভিন্ন ধরনের কোষ দ্বারা গঠিত, যা জীবনের মৌলিক একক।

মানবদেহ সম্পর্কিত 100 প্রশ্ন উত্তর

প্রশ্নঃ  হৃৎপিণ্ড শরীরের কোন্ দিকে থাকে?

উত্তরঃ বুকের বাঁ দিকের পাঁজরার নীচে।

প্রশ্নঃ  হৃৎপিণ্ডের কাজ কি?

উত্তরঃ হৃৎপিণ্ডের কাজ শরীরের সর্বত্র রক্ত সঞ্চালন করা।

প্রশ্নঃ  শরীরের মােট রক্তের পরিমাণ কত?

উত্তরঃ শরীরের ওজনের ১০ ভাগের ১ ভাগ রক্ত থাকা উচিত।

প্রশ্নঃ  মানুষের শরীরে কখানা হাড় আছে?

উত্তরঃ ছােট বড় মিলিয়ে ২০৬ খানা।

প্রশ্নঃ  কঙ্কাল কাকে বলে?

উত্তরঃ মানুষের হাড়ের কাঠামােকে কঙ্কাল বলে।

প্রশ্নঃ  মানুষের মাথায় কটি হাড় আছে ?

উত্তরঃ ২২টি।

প্রশ্নঃ  মানুষ মিনিটে কতবার শ্বাস প্রশ্বাস নেয়?

উত্তরঃ শিশু ৪০ বার, বালক ২৫ বার, পূর্ণ বয়স্ক লােক ১৮ বার।

প্রশ্নঃ  মানুষের শরীরে কতগুলি পেশী আছে?

উত্তরঃ প্রায় ৫০০টি।

প্রশ্নঃ  প্লীহা ও যকৃৎ দেহের কোন দিকে থাকে?

উত্তরঃ  ‘বাঁদিকে প্লীহা ও ডানদিকে যকৃৎ থাকে।

প্রশ্নঃ  জিভের দ্বারা কি করি?

উত্তরঃ জিভের সাহায্যে আমরা স্বাদ পাই ও কথা বলি।

প্রশ্নঃ  মানুষের কতগুলি দাঁত থাকে?

উত্তরঃ ২/৩ বছরের শিশুর ২০টি; ৬ থেকে ৮ বছরের বালকের ২৯টি, পূর্ণবয়স্ক লােকের ৩২টি।

প্রশ্নঃ   মানুষের দাঁত কি হাড়?

উত্তরঃ হাড় নয়। একপ্রকার চুন জাতীয় পদার্থ।

প্রশ্নঃ মানবদেহের উষ্ণতা কত?

উত্তরঃ শরীরের স্বাভাবিক উষ্ণতা ৯৮.৪ ডিগ্রী, মুখ-গহরের উষ্ণতা ৯৯.৫।

প্রশ্নঃ  আমরা কানে কথা শুনি কেন?

উত্তরঃ বাতাসে যে সব তরঙ্গ আছে তা কানের ভেতরে ঢুকে কর্ণপটহ স্পন্দিত করে।

প্রশ্নঃ  মানুষের জ্ঞান-কেন্দ্র কোথায়?

উত্তরঃ মস্তিষ্কে।

প্রশ্নঃ  মানুষের জীবনের ধ্রুব সত্য কি?

উত্তরঃ মৃত্যু।

প্রশ্নঃ  মানবদেহে সবচেয়ে বড় হাড় কোনটি?

উত্তরঃ উরুর হাড় বা থাইবােন।

প্রশ্নঃ  মানুষের গলার কটি নালী থাকে?

উত্তরঃ মানুষের গলায় দুটি নালী। শ্বাসনালী ও অপরটি হল খাদ্যনালী।

প্রশ্নঃ  মানবদেহে যত শিরা আছে তাদের মোট দৈর্ঘ্য কত হবে?

উত্তরঃ প্রায় ৬০ মাইল।

প্রশ্নঃ  চুল বা নখ কাটলে ব্যথা লাগে না কেন?

উত্তরঃ  চুল বা নখে কোন স্নায়ু নেই বলে চুল বা নখ কাটলে ব্যথা লাগে না।

এটিও পড়ুন –

আমাদের শরীরের বিষয়ে ১৫টি চমকপ্রদ তথ্য রয়েছে যা জানলে আপনি বিস্মিত হতে পারেন।

১. কোনো ব্যক্তির মুখে বিদ্যমান ব্যাকটেরিয়ার সংখ্যা পৃথিবীর মোট লোক সংখ্যার সমান বা তারও বেশি।

২. মস্তিষ্কের স্পন্দনের গতি ঘণ্টায় প্রায় ৪০০ কিলোমিটার।

৩. আমাদের মস্তিষ্কে প্রতি সেকেন্ডে ১০০০০০ রাসায়নিক বিক্রিয়া ঘটে।

৪. আপনার হাঁচির গতি ঘণ্টায় ১৬০ কিমি।

৫. আমাদের হৃদপিণ্ড বছরে ৩৫ মিলিয়ন বার বিট দেয়।

৬. একজন ব্যক্তি তার জীবনে গড়পড়তায় প্রায় ৩৫ টন খাদ্যগ্রহণ করে।

৭. মানবদেহ প্রতিদিন প্রায় এক মিলিয়ন ত্বকের কোষ হারিয়ে ফেলে, যার পরিমাণ বছরে ২ কিলোগ্রাম হয়।

৮. মাত্র একদিনে আমাদের রক্ত ​​১৯৩১২ কিলোমিটার দূরত্ব ‘দৌড়ায়’।

৯. ছেলেদের জিহ্বার পৃষ্ঠে মেয়েদের চেয়ে স্বাদের কুঁড়ি (টেস্ট বাট) কম থাকে।

১০. মানবদেহের সবচেয়ে শক্তিশালী পেশি জিহ্বা।

১১. আমাদের কান প্রায় অবিশ্বাস্য গতিতে জীবনব্যাপী বাড়তে থাকে। কান প্রতি বছর এক মিলিমিটারের এক চতুর্থাংশ পরিমাণ বৃদ্ধি পায়।

১২. আমাদের ধারনা চার ধরণের রক্ত রয়েছে আমাদের দেহে। আসলে রক্তের ধরন ২৯টি। তাদের মধ্যে বিরলতম হচ্ছে বোম্বাই সাব টাইপ।

১৩. মানুষের চোখ ১ কোটি পর্যন্ত নানা রংয়ের মধ্যে পার্থক্য করতে পারে। কিন্তু আমাদের মস্তিষ্ক এর সবগুলো মনে রাখতে পারে না।

১৪. একজন মানুষ প্রতিদিন প্রায় ২০০০০ বার শ্বাস নেয়।

১৫. মানবদেহের সকল স্নায়ুর মোট দৈর্ঘ্য ৪৫ কিলোমিটার।

আমাদের ধারণা, আমরা নিজেদের দেহ সম্পর্কে পুরোপুরি জানি। কিন্তু অজানা রয়েছে অনেক কিছুই। আমরা সাধারণত জানি যে, আমাদের দেহ কীভাবে কাজ করে এবং এতে কী ধরণের পরিবর্তন ও প্রক্রিয়াগুলো ঘটছে।

প্রকৃতপক্ষে মানবদেহে জটিল এবং রহস্যময় প্রক্রিয়া বিদ্যমান, যা মাঝেমধ্যে সবচেয়ে দক্ষ বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক ও  বিজ্ঞানীদেরও বিভ্রান্ত করে ফেলে।

আমাদের শরীরের বিষয়ে ২১ টি চমকপ্রদ তথ্য রয়েছে যা জানলে আপনি মুগ্ধ ও বিস্মিত হবেন। এবার আসুন জেনে নিই বিষয়গুলো :

১ . জিভ দেখে অনেক কিছু বুঝা যায়। জিভের নমুনা একেবারে অনন্য। তাই কাউকে জিভ দেখানোর সময় এটি মনে রাখবেন।

২. একটি চুল ঝুলন্ত আপেলের ওজন ধরে রাখতে পারে। তবে বিজ্ঞানীরা আপেলের মাত্রা নির্দিষ্ট করেন নি।

৩. কোনও ব্যক্তির মুখে বিদ্যমান ব্যাকটিরিয়ার সংখ্যা পৃথিবীর মোট  লোক সংখ্যার সমান বা তারও বেশি।

৪. ব্যক্তির নখগুলো নরম ও ভঙ্গুর এবং চাঁদহীন হলে তা অতিরিক্ত থাইরয়েডের নির্দেশ করতে পারে।

৫. মস্তিস্কের স্পন্দনের গতি ঘন্টায় প্রায়  ৪০০ কিলোমিটার।

৬ আমাদের ধারনা চার ধরণের রক্ত রয়েছে আমাদের দেহে। আসলে রক্তের ধরন ২৯ টি। তাদের মধ্যে বিরলতম হচ্ছে বোম্বাই সাব টাইপ।

৭. মাত্র একদিনে আমাদের রক্ত ​​১৯ ৩১২ কিলোমিটার দূরত্ব ‘দৌড়ায়’।

৮. মানবদেহের সকল স্নায়ুর মোট দৈর্ঘ্য ৪৫ কিলোমিটার।

৯. একজন মানুষ প্রতিদিন প্রায় ২০০০০ বার শ্বাস নেয়।

১০. বিশ্বের প্রায় সকল লোকের চোখের পাতায় ‘ডেমোডেক্স’ নামের একটি বিশেষ ধরনের উপাদান থাকে।

১১. মানুষের চোখ ১ কোটি পর্যন্ত নানা রংয়ের মধ্যে পার্থক্য করতে পারে। কিন্তু আমাদের মস্তিষ্ক এর সবগুলো মনে রাখতে পারে না।

১২. আমাদের কান প্রায় অবিশ্বাস্য গতিতে জীবনব্যাপী বাড়তে থাকে। কান প্রতি বছর এক মিলিমিটারের এক চতুর্থাংশ পরিমাণ বৃদ্ধি পায়।

১৩. আমাদের হৃদপিণ্ড বছরে ৩৫ মিলিয়ন বার বিট দেয়।

১৪. মানবদেহ প্রতিদিন প্রায় এক মিলিয়ন ত্বকের কোষ হারিয়ে ফেলে, যার পরিমাণ বছরে ২ কিলোগ্রাম হয়।

১৫. আপনার ত্বকের প্রতি ১ বর্গ সেন্টিমিটারে প্রায় শতাধিক ব্যথা সংবেদক রয়েছে।

১৬. ছেলেদের জিহ্বার পৃষ্ঠে মেয়েদের চেয়ে স্বাদের কুঁড়ি(টেষ্ট বাট) কম থাকে।

১৭. একজন ব্যক্তি তার জীবনে গড়পড়তায় প্রায় ৩৫ টন খাদ্যগ্রহণ করে।

১৮. একজন মানুষ তার জীবনের প্রায় পাঁচ বছর দারুন সক্রিয় থাকে।

১৯. আমাদের মস্তিস্কে প্রতি সেকেন্ডে ১০০০০০ রাসায়নিক বিক্রিয়া ঘটে।

২০. আপনার হাঁচির গতি ঘন্টায় ১৬০ কিমি।

২১. হাসিতে মুখের ১৭টি পেশিকে ‘ট্রিগার’ করে। অন্যদিকে কান্নায় ৪৩ টি পেশি সক্রিয় হয়ে উঠে। তাই আরও হাসুন।

সূত্র : ব্রাইট

 

মানবদেহ সম্পর্কিত বিভিন্ন জানা অজানা তথ্য, বৈজ্ঞানিক অজানা তথ্য,Various known and unknown facts about human body, 10 incredible human body facts, strange but true facts, about humans mind-blowing facts, about human body funny biology, facts 50 amazing facts, about human body 1,000 amazing facts, about human body important and interesting facts, about human body parts pdf, 10 amazing facts, about human body with pictures,মানবদেহ সম্পর্কে সাধারন জ্ঞান

Leave a Reply

Translate »