যৌনতা নিয়ে চিন্তা-ভাবনা কি নারীরা বেশি করেন নাকি পুরুষরা?

যৌনতা একটা স্বাভাবিক বিষয় । এটা নিয়ে চিন্তা আসতেই পারে । আর চিন্তা আসাটায় স্বাভাবিক । তবে যৌনতা নিয়ে কারা বেশি চিন্তা করে নারী নাকি পুরুষ সেটা বলা কঠিন । কিন্তু আমার মতে যৌনতা নিয়ে তারাই বেশি চিন্তা করে যারা মুখে মুখে যৌনতাকে খারাপ, অপবিত্র, ভয়ংকর, শয়তানের মন্ত্র বলে এবং এটিকে একটি গুপন অস্বাভাবিক বিষয় বলে তুলে ধরে ।

যৌনতা নিয়ে কথা বলাই যেন পাপ। এই বিষয়ে কথা উঠলেই জ্বীবে কামড় দিয়ে বুঝানো হয় হাড়ির ভেতরের গুপন জিনিস বের করতে নেই । যেন এটা একটা নিষিদ্ধ বিষয় । মানুষ যুগ যুগ ধরে যৌনতাকে দমনের কৌশল আবিষ্কার করেছে ।

আর মানুষের চিন্তা যৌন কেন্দ্রই ঘুরপাক খাচ্ছে । যারা অতিক্রম করে যেতে পেরেছে তারাই সফল হয়েছে। কিন্তু আপনি ভেবে দেখেছেন কি? মানুষ স্বভাবগতভাবে নিষিদ্ধ বিষয়ের প্রতি বেশি আগ্রহ, অপেক্ষাকৃত বেশি কৌতুুহল দেখায় । সহজভাবে সেই বিষয়ে জানতে না পারলে সে কোন না কোন উপায় বের করে নেবে সেটা জানার জন্য ।

আপনার পেটে খিদে থাকলে আপনি সারদিন খাবারের চিন্তা করবেন । খিদে নিয়ে ঘুমাতে গেলে আপনি খাবারের স্বপ্ন দেখবেন। খেয়াল করে দেখবেন, যেদিন সকালে খালি পেটে খিদে নিয়ে বাহিরে বের হবেন সেদিন আপনার সামনে বেশি বেশি হরেক রকমের খাবারের দোকান পড়বে ।

অন্যদিন যে এই দোকানগুলো আপনার সামনে পড়েনা ঠিক তেমন না, অন্যদিনও পড়ে কিন্তু আপনার মাথায় সেই খাবারের চিন্তা না থাকায় সেগুলোর প্রতি আপনি মনযোগ দেন না বা সচেতন থাকেন না । কিন্তু পেটে খিদে নিয়ে বাহির হয়েছেন । মাথায় শুধু খাবারের চিন্তা কানামাছি খেলছে আর সেই কারণেই আপনি সচেতন হয়ে পড়ছেন খাবারের দোকানের প্রতি । ঠিক তেমনই যৌনতার বিদ্যুত তরঙ্গ যখন মানুষের দেহে কাল বৈশাখির ঝড়ের সৃষ্টি করে তখন তার মাথায় আর অন্য কোন চিন্তা সহজে আসে না যৌনতা ছাড়া । সমাজ বিয়েকে করেছে কঠিন ।

18 বছরের আগে বিয়ে করলে সমস্যা আর ক্লাস 6 এ পড়া অস্থায় প্রেমে জড়িয়ে অবৈধ সম্পর্ক স্থাপনে কোন সমস্যা নেই । বেশির ভাগ ছেলে মেয়ের পড়াশোনা শেষ করে চাকরী নিয়ে বিয়ে করতে করতে 27–30 বছর পার হয়ে যায় । কিন্তু অনেক আগেই তাদের দেহে যৌনতার কলি ফুটে । এত বছর যৌনতার চিন্তা মাথায় কানামাছি খেলে । কিন্তু খড়স্রোতা নদীর স্রোতকে বালির বাধ দিয়ে কি দমিয়ে রাখা যায়? যৌনতার চাহিদা কোন না কোনভাবে পূরণ করেই । স্বাভাবিকভাবে পুরণের রাস্তা না পেয়ে অনেকে বিকৃত পথে পা বাড়ায় ।

যার ফলে তাদের চিন্তা তাদের যৌনকেন্দ্রই আবদ্ধ থাকে । এটিকে অতিক্রম করে যেতে পারে না । দমনের মাধ্যমে যৌনতার একটা ছিদ্র বন্ধ করলে সেটি 10 ছিদ্র দিয়ে বের হবে । 10 টা ছিদ্র বন্ধ করলে সেটি 40 টা ছিদ্র দিয়ে বের হবে । সেটা নারী বা পুরুষ দুজনের ক্ষেত্রেই প্রযোজ্য । এই বিষয়ে আরও বিস্তারিত লেখার ইচ্ছে করছে কিন্তু সময়ের অভাবে আজ এই পর্যন্ত ইতি টানতে হচ্ছে । অন্যকোন দিন অন্যকোন প্রশ্নে বিস্তারিত লিখার চেষ্টা করবো ।

ডেইলি নিউজ টাইমস বিডি ডটকম (Dailynewstimesbd.com)এর ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব ও ফেসবুক পেইজটি ফলো করুন করুন।

Leave a Reply

Translate »