কোটালীপাড়ায় অসামাজিক কার্যকলাপের অভিযোগে ছয় নারী আটক

গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া উপজেলার রামশীল গ্রামে আলোচিত পতিতা পল্লি ভেঙে দিয়েছে স্থানীয় জনতা। আজ শনিবার দুপুরে রামশীল ইউনিয়নের হাজার-হাজার নারী-পুরুষ জড়ো হয়ে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করে মিনি পতিতালয়টি ভেঙ্গে দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পতিতা সর্দারনী ও ওই বাড়ীর মালিক পলি সমদ্দার সহ পাঁচ যৌন কর্মী কে আটক করে। এসময় তাদের হেফাজত থেকে গাজা উদ্ধার করা হয়।

পরে মোবাইল কোর্টের বিচারক উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট আফিয়া শারমিন ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে মাদক রাখার অপরাধে, মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ২০০১ এর ধারায় পতিতা সর্দারনী পলি সমদ্দার কে দের বছরের কারাদন্ড প্রদান করেন এবং অপর পাঁচ যৌন কর্মিকে নিয়মিত মামলায় জেলহাজতে পাঠানো হয়।

হাডুডু খেলেছি, তাই কীভাবে কাউকে আটকাতে হয় জানি

স্থানীয়দের অভিযোগ পলি সমদ্দারের এই ধরণের অসামাজিক কার্যকলাপ পরিচালনার ফলে এলাকার স্কুল কলেজ পড়ুয়া ছেলেরা সহ গোটা এলাকার যুব সমাজ ধংশের মুখে পতিত হচ্ছে আমরা আমাদের ছেলে-মেয়েদের নিয়ে উদ্বেগ উৎকণ্ঠায় আছি পলি সমদ্দারের কারণে এলাকার সামাজিক পরিবেশ নষ্ট হয়ে গেছে।

জানাগেছে তিন স্বামী পরিবর্তন করা পলি সমদ্দার দীর্ঘদিন ধরে রামশীল বাজারের উত্তর পাশে চায়ের দোকানের আড়ালে একটি বাড়ীতে বিভিন্ন স্থান থেকে যৌন কর্মী এনে অসামাজিক কার্যকলাপ করে আসছিলো এবং সেখানে বিভিন্ন বয়সের মানুষ যাতায়াত করতো। এর আগে একই অপরাধে পলি সমদ্দারকে একাধিকবার পুলিশ গ্রেফতার করে জেল হাজতে পাঠালেও।

কয়েকদিন পর জেল থেকে বেরিয়ে এসে পুনরায় অসামাজিক কার্যকলাপ চালিয়ে যাচ্ছে পলি সমদ্দার।

 

Leave a Reply

Translate »