কিশোরকে একাধিকবার ধর্ষণ, ওসির গাড়িচালক গ্রেফতার

ফেনীতে অবৈধ মালামাল বহন করার অজুহাত দেখিয়ে এক কিশোরকে একাধিকবার ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে মো. ইউনুস নামে ফেনী মডেল থানার ওসির এক গাড়িচালকের বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার সকালে অভিযুক্ত গাড়িচালককে গ্রেফতারের পর রাতেই তাকে বরখাস্ত করা হয়েছে। এর আগে ভুক্তভোগী কিশোরের মা বাদী হয়ে ফেনী মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলার বিবরণী থেকে জানা যায়, শহরের একটি দোকানে চাকরি করেন ভুক্তোভোগী কিশোর। গত ২৩ ডিসেম্বর রাতে দোকান বন্ধ করে তিনি রামপুরে তার বাড়ি যাচ্ছিলেন। এসময় মহিপাল ফ্লাইওভারের নীচে পৌঁছালে পথে গতিরোধ করে ওই কিশোরের কাছে অবৈধ মালামাল আছে অজুহাতে তাকে আটক করেন মো. ইউনুস ।

পরে একই এলাকার নাইট হোল্ড নামের একটি হোটেলে নিয়ে ভয়ভীতি দেখিয়ে তাকে ধর্ষণ করে ইউনুস। পরদিন ফের নির্জন স্থানে নিয়ে থানার গাড়িতে তাকে ধর্ষণ করে। গত ৫ মার্চ অভিযুক্ত পুলিশ সদস্য মো.  ইউনুস ফের নতুন একটি মোবাইল সেট উপহার দেয়ার লোভ দেখিয়ে তার নিজ গ্রামের বাড়ি নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী নিয়ে যায়।

৩ ধাপে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা, দেখে নিন সূচি

সেখানে বাড়ির একটি কক্ষে তাকে একাধিকবার ধর্ষণ করে। পরে কিশোরটি উপহারের সেই মোবাইল সেটটি অন্যত্র বিক্রি করে দেয়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে গাড়িচালক পুলিশ সদস্য মো. ইউনুস মোবাইল সেটটি  চুরি হয়েছে মর্মে থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করে। পরে মোবাইল সেটটি পুলিশ উদ্ধার করলে কিশোরের মা ঘটনার বিস্তারিত জানতে পারেন এবং এ বিষয়ে বৃহস্পতিবার সকালে থানায় একটি ধর্ষণের মামলা করেন।

এ ব্যাপারে ফেনী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নিজাম উদ্দিন বলেন, ঘটনায় তদন্ত পূর্বক সত্যতা পেয়ে আসামি ইউনুসকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় তাকে বরখাস্ত করা হয়েছে।

Facebook Notice for EU! You need to login to view and post FB Comments!

Leave a Reply

Translate »